নীলাকাশ টুডেঃ পাকিস্তানের বিপক্ষে সিরিজ শুরুর আগে ৩ দুঃসংবাদ এলো ক্যারিবীয় শিবিরে।

উইন্ডিজ ক্রিকেট দলের ৩ ক্রিকেটারসহ চারজনের শরীরে মিলেছে প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস।

আক্রান্ত ক্রিকেটাররা হলেন- বাঁহাতি পেসার শেলডন কটরেল, অলরাউন্ডার রোস্টন চেস, ব্যাটসম্যান কাইল মেয়ার্স এবং টিম ম্যানেজমেন্টের একজন নন-কোচিং সদস্য।
তারা করোনা পজিটিভ হওয়ার পর পর আইসোলেশনে চলে গেছেন। ১০ দিন পিসিআর টেস্টে নেগেটিভ ফল আসলে দলের সঙ্গে যোগ দিতে পারবেন তারা।

শনিবার রাতে এক প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে এসব তথ্য জানিয়েছে উইন্ডিজ ক্রিকেট বোর্ড।

ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলটি বর্তমানে পাকিস্তানেই অবস্থান করছে। বাবর আজমদের বিপক্ষে সমান ৩ ম্যাচের টি-টোয়েন্টি ও ওয়ানডে সিরিজ খেলবে তারা। আগামী ১৩ ডিসেম্বর থেকে শুরু হয়ে মাত্র ১০ দিনেই সমাপ্ত হবে সফরটি।

যে কারণে দলের এই তিন সেরা তারকাকে সফরে পাওয়া প্রায় অনিশ্চিত। বিষয়টি ওয়েস্ট ইন্ডিজের জন্য বড় ধাক্কাই বটে।

এমনিতেই পাকিস্তার সফরে পূর্ণ শক্তির দল পায়নি উইন্ডিজ।ব্যক্তিগত কারণে আগেই এই সফর থেকে নিজেদের সরিয়ে নেন অলরাউন্ডার আন্দ্রে রাসেল, ব্যাটসম্যান এভিন লুইস, লেন্ডল সিমন্স ও শিমরন হেটমায়ার। অভিজ্ঞ অলরাউন্ডার জেসন হোল্ডারকে বিশ্রাম দেওয়া হয়েছে। চোট থেকে সেরে না ওঠায় অধিনায়ক কাইরন পোলার্ড আছে দলের বাইরে।

এরই মধ্যে এ তিন তারকাকে হারালে পাকিস্তানের মতো শক্তিশালী দলটির বিপক্ষে ক্যারিবীয়দের জন্য সিরিজটি বেশ কঠিন হয়ে দাঁড়াবে তা বলার অপেক্ষা রাখে না।

এদিকে সিরিজকে সামনে রেখে কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করেছে পাকিস্তান প্রশাসন।

জানা গেছে, ওয়েস্ট ইন্ডিজের ক্রিকেটারদের নিরাপত্তায় থাকবেন ৮৮৯ কমান্ডোসহ পাকিস্তানের চার হাজারের বেশি নিরাপত্তাকর্মী। এদের মধ্যে ৪৬ জন সহকারী সুপারিনটেনডেন্ট, করাচি পুলিশের ১৩ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা, ৩১৫টি এনজিও, ৩ হাজার ৮২২ জন কনস্টেবল ও ৫০ জন নারী পুলিশ, র্যাপিড রেসপন্স ফোর্সের ৫০০ জন এবং ৮৮৯ কমান্ডো নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকবেন।