নীলাকাশ টুডেঃ বাংলাদেশ কংগ্রেসের মহাসচিব এ্যাডঃ মোঃ ইয়ারুল ইসলাম বলেছেন, লকডাউন না দিয়ে টিকা কার্যক্রম ও স্বাস্থ্যসেবা জোরদার করতে হবে এবং সবাইকে কঠোরভাবে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে।

দেশে ও প্রবাসে অবস্থানকারী জনগণ, রাজনৈতিক সহকর্মী, গণমাধ্যম কর্মী, আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্য, করোনা যোদ্ধা এবং তার নির্বাচনী এলাকা সাতক্ষীরা-১ ও ২ আসন তথা তালা, কলারোয়া ও সাতক্ষীরা সদরের সর্বস্তরের জনগণের প্রতি পবিত্র ঈদ উল আজহার শুভেচ্ছা জানিয়ে এ্যাডঃ ইয়ারুল ইসলাম এ কথা বলেন।

ঈদ শুভেচ্ছা বার্তায় বাংলাদেশ কংগ্রেসের মহাসচিব বলেন, বিশ্বের অন্য সব দেশের মতো বাংলাদেশেও চলছে ভয়াবহ করোনার মহাদুর্যোগ। এই দুর্যোগের মধ্যে ভিন্ন মাত্রা নিয়ে এবারকার ঈদ উল আজহার আগমন। ইতিমধ্যে করোনা কেড়ে নিয়েছে আমাদের অনেক আপনজনকে এবং অনেকে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে বা বাড়িতে চিকিৎসাধীন আছেন। তিনি মৃতদের আত্মার মাগফেরাত কামনা এবং আক্রান্ত ও ক্ষতিগ্রস্ত সকলের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করেন।

তিনি বলেন, করোনার ভয়াবহতা থেকে মুক্তির জন্য আমাদের সবাইকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে এবং করোনাকে পুঁজি করে সরকার বা অন্য কোন স্বার্থান্বেষী মহল যাতে অনৈতিক সুবিধা নিতে না পারে সে ব্যাপারে আমাদের সচেতন থাকতে হবে। লকডাউনের নামে সরকার যেন জনগণকে অহেতুক কষ্ট না দেয় এবং আন্দোলন-সংগ্রাম বন্ধ করে সুষ্ঠু নির্বাচনের পথ রুদ্ধ করতে না পারে সে ব্যাপারে জনগণকে সতর্ক থাকতে হবে। প্রহসনের নির্বাচনের মাধ্যমে অনৈতিকভাবে ক্ষমতায় যাওয়ার জন্য সরকার করোনাকে সুযোগ হিসেবে নিতে পারে এবং সে উদ্দেশ্যে বারবার অপ্রয়োজনীয় লকডাউন দিয়ে দেশকে ক্ষতিগ্রস্থ করতে পারে।

এ্যাডঃ ইয়ারুল ইসলাম বলেন, ইতিমধ্যে সরকার খাদ্য সহায়তার ব্যবস্থা না করে কঠোর লকডাউনের নামে জনগণকে নিদারুণ কষ্ট দিয়েছে এবং জনগণকে স্বাস্থ্য সেবা প্রদানে শোচনীয় ব্যর্থতার পরিচয় দিয়েছে। ঈদের পরে লকডাউন না দিয়ে স্বাস্থ্যসেবা ও টিকা কার্যক্রম জোরদার করতে এবং স্বাস্থ্যবিধি মানতে কঠোরতা অবলম্বন করতে সরকারের প্রতি আহবান জানান তিনি।